শৈলকুপা হাসপাতালে দু’গ্রুপের সংঘর্ষে মহিলাসহ আহত ৬, আটক ৬

প্রকাশিত: ১২:৪৪ পূর্বাহ্ণ, এপ্রিল ৪, ২০২০

শৈলকুপা হাসপাতালে দু’গ্রুপের সংঘর্ষে মহিলাসহ আহত ৬, আটক ৬

এম বুরহান উদ্দীন, শৈলকুপা (ঝিনাইদহ) প্রতিনিধি:

চিকিৎসা নিতে এসে শেষ রক্ষা হলোনা তাদের। বাড়ি থেকে পেটানোর পর আবার হাসপাতালে এসে পূনরায় পিটিয়ে রক্তাক্ত করল প্রতিপক্ষরা। ঘটনাটি শুক্রবার(৩ এপ্রিল) সন্ধা ৬টার দিকে ঝিনাইদহের শৈলকুপা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে। এ সময় ৬ ব্যক্তি আহত হয়। তাদের শৈলকুপা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। এরপর ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ ৬ ব্যক্তিকে আটক করে বলে জানা যায়। এদের সবার বাড়ি উপজেলার বোয়ালিয়া গ্রামে।

 

আহত হবিবর শেখ জানান, দীর্ঘদিন তার চাচাতো ভাই সেকেন্দার, আকামদ্দির সাথে জমি নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল। এ নিয়ে তারা আইন ও গ্রাম্য শালীসে কয়েকবার পরাজিত হয়। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে শুক্রবার (৩ এপ্রিল) দুপুরে তার ছোট ভায়ের বৌ প্রতিরন নেছাকে পিটিয়ে আহত করে সেকেন্দার সমর্থকরা। আমি ছিলাম বাগুটিয়া জামাই বাড়ি।

 

এরপর খবর পেয়ে তাকে বিকালে শৈলকুপা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে পুনরায় সেকেন্দার, আকামুদ্দিন, ফারুক, জিকু সহ আরো অনেকে আমাদের উপর হাসপাতালেই হামলা চালিয়ে মাজেদা, চম্পা, প্রতিরন সহ ৬ ব্যক্তিকে আহত করে।

 

এ ঘটনায় পুলিশ শৈলকুপা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে ৬ ব্যক্তিকে আটক করে বলে জানা যায়।

 

শৈলকুপা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডাক্তার আকাশ আল আলিফ জানান, বোয়ালিয়া গ্রামে জমি নিয়ে বিরোধে কয়েক ব্যক্তির উপর হামলার পর চিকিৎসা নিতে আসলে পুনরায় আবার প্রতিপক্ষরা হাসপাতালে এসেও হামলা ঘটনার ঘটে।

 

এ বিষয়ে, শৈলকুপা থানার উপ-পরিদর্শক অমিত কুমার জানান, শৈলকুপা হাসপাতালে চিকিৎসা নিতে আসা ব্যক্তিদের উপর হামলার ঘটনায় ৬ ব্যক্তিকে আটক করা হয়েছে।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ